Skip to content

দলীয় সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়: নজরুল ইসলাম | বাংলাদেশ

দলীয় সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়: নজরুল ইসলাম | বাংলাদেশ

<![CDATA[

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেছেন, দলীয় সরকারের অধীনে কখনই সঠিকভাবে জনপ্রতিনিধিত্বশীল নির্ভেজাল নির্বাচন সম্ভব নয়।

বুধবার (৪ জানুয়ারি) বিকালে নীলফামারীর সৈয়দপুরে পৌরসভা সড়কের আদিবা কনভেনশন সেন্টারে বিএনপির এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

গণতন্ত্র পুন:প্রতিষ্ঠায় ঘোষিত ১০ দফা দাবী এবং রাষ্ট্র মেরামতে ২৭ দফা রূপরেখার বিষয়ে এ আলোচনা সভাটি অনুষ্ঠিত হয়।

আওয়ামী লীগ জোর করে ক্ষমতায় বসে থাকতে চাইলে আন্দোলনের মাধ্যমে ক্ষমতাচ্যুত করা হবে বলে হুশিয়ারি দিয়ে নজরুল ইসলাম বলেন, দেশ ও দশের সঙ্গে দলেরও মঙ্গল চাইলে এখনই এই সংসদ ভেঙ্গে দিয়ে সব দলের অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের আয়োজন করার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানাই। নয়তো জনগণকে সঙ্গে নিয়ে নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলনের মধ্য দিয়েই কর্তৃত্ববাদী স্বৈরশাসনের পতন ঘটানো হবে।

বিএনপির ১০ দফা আন্দোলনের ঘোষণার বিষয়ে তিনি বলেন, প্রতিহিংসার রাজনীতি বন্ধ করে সমন্বয় ও সহমর্মিতার রাজনীতির প্রবর্তন এবং শুধু রাজনৈতিকভাবে নির্বাচিত ব্যক্তিবর্গ নয় বরং সমাজের সব স্তরের জনগণের প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে একটা দায়বদ্ধ সরকার প্রতিষ্ঠার লক্ষেই মূলত আমাদের ১০ দফার আন্দোলনের ঘোষণা দেয়া হয়েছে। এর আলোকে জনমতের ভিত্তিতেই ২৭ দফা রূপরেখাও প্রণয়ন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: আব্দুস সাত্তারকে বিএনপি থেকে বহিষ্কার, অবাঞ্ছিত ঘোষণা

‘এ বিষয়ে অবগত করতেই ইতোমধ্যে বিভাগীয় গণসমাবেশ করা হয়েছে। জনগণকে আরও বিস্তারিত জানাতে জেলা উপজেলায় আলোচনা সভায় মিলিত হতেই আমাদের আগমন। কারণ আমরা চাই এই রূপরেখার ভিত্তিতে রাষ্ট্র কাঠামো মেরামত করলেই প্রকৃতপক্ষে গণতন্ত্র পুন:প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব হবে। যা বাস্তবায়নের জন্য একটা নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন প্রয়োজন। যাতে সব দল অংশগ্রহণ করবে এবং সবাই অবাধে ভোট দিতে পারবে।’

দেশের জনগণ আওয়ামী লীগ সরকারকে আর ক্ষমতায় দেখতে চায়না উল্লেখ করে তিনি বলেন, ক্ষমতায় চেপে বসা এই বিনাভোটের অবৈধ সরকারের বিদায় চায় দেশের জনগণ। তাই দেশের প্রায় ৩৩টি রাজনৈতিক দল আমাদের দাবীর প্রতি সমর্থন ব্যক্ত করে যুগপৎ আন্দোলনে সম্পৃক্ত হতে চেয়েছে। তারাও গণতন্ত্র চায়, দেশ ও জনগণের কল্যাণ চায়। কারণ আওয়ামী সরকারের প্রতিহিংসা ও ধ্বংসের রাজনীতি দেশকে পর্যুদস্ত করে ফেলেছে। এ থেকে উত্তরণে সরকার পরিবর্তনের বিকল্প নাই।

আলোচনা সভায় প্রধান বক্তা ছিলেন রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক মন্ত্রী অধ্যক্ষ আসাদুল হাবিব দুলু, বিশেষ অতিথি সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও দিনাজপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, সাবেক সংরক্ষিত নারী এমপি ও কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য বিলকিস ইসলাম এবং নীলফামারী জেলা বিএনপি’র সভাপতি আলমগীর সরকার।

সৈয়দপুর রাজনৈতিক জেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক অধ্যক্ষ আলহাজ্ব আব্দুল গফুর সরকারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় আরও বক্তব্য দেন নীলফামারী জেলা সাধারণ সম্পাদক জহুরুল আলম, সৈয়দপুর জেলা কমিটির সদস্য সচিব পৌর কাউন্সিলর শাহিন আকতারসহ সৈয়দপুর ও নীলফামারী জেলা বিএনপিসহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতারা।

]]>

সূত্র: সময় টিভি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *