Skip to content

পটুয়াখালীতে শিশু নির্যাতনের ভিডিও ভাইরাল, ওয়ার্ড মেম্বারকে শোকজ | বাংলাদেশ

পটুয়াখালীতে শিশু নির্যাতনের ভিডিও ভাইরাল, ওয়ার্ড মেম্বারকে শোকজ | বাংলাদেশ

<![CDATA[

চুলের কাটিং পছন্দ না হওয়ায় স্থানীয় মেম্বারের ভাইয়ের হাতে নির্যাতিত হয়েছেন এক স্কুল শিক্ষার্থী। ৭ম শ্রেণি পড়ুয়া ওই স্কুল শিক্ষার্থীকে প্রকাশ্যে বেধড়ক মারধর ও নির্যাতনের একটি ভিডিও এরইমধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে।

ঘটনাটি ঘটেছে পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলার চর কাজল নতুন বাজার জামে মসজিদের সামনে। অভিযুক্তের নাম মো. বশির দফাদার। তিনি চর কাজল ইউপির ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য মো. মনির দফাদারের ছোট ভাই।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হলে ভিডিওটি সোমবার (২৬ জুন) দুপুরে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের দৃষ্টিগোচর হয়। পরে তিনি ওই ইউনিয়নের ইউপি সদস্য মনির দফাদারকে শোকজ করেন।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা যায়, স্কুলছাত্রকে চড় মেরে মাটিতে ফেলে তার বুকের ওপর পা দিয়ে চেপে ধরে মারধোর করছেন অভিযুক্ত বশির। আর অনেক আকুতি-মিনতি করেও তার নির্যাতন থেকে রেহাই পায়নি ওই স্কুল শিক্ষার্থী। এ সময় পাশ থেকে কয়েকবার ‘থাক মাফ করে দেন’ বলতে শোনা যায় এক মহিলাকে।

আরও পড়ুন: চুরির অভিযোগে কিশোরকে মারধরের ভিডিও ভাইরাল, পুলিশ কনস্টেবল বরখাস্ত

জানা গেছে, ইউপি সদস্য মনির ও তার আত্মীয়-স্বজনরা স্থানীয়ভাবে প্রভাবশালী হওয়ায় এলাকাবাসী সরাসরি এ ব্যাপারে মুখ খুলতে সাহস পাচ্ছে না। অভিযুক্ত ও তার ভাই বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা চালাচ্ছেন বলেও অভিযোগ তাদের।

এ ব্যাপারে গলাচিপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুনিত কুমার গায়েন জানান, লিখিত অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ বিষয়ে গলাচিপা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মহিউদ্দিন আল হেলাল জানান, এরইমধ্যে ইউপি সদস্যকে শোকজ করা হয়েছে। শোকজের জবাব সন্তোষজনক না হলে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

]]>

সূত্র: সময় টিভি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *