Skip to content

১৬ সীমান্ত হাট চালুর কথা বিবেচনা করছে ভারত-বাংলাদেশ | বাণিজ্য

১৬ সীমান্ত হাট চালুর কথা বিবেচনা করছে ভারত-বাংলাদেশ | বাণিজ্য

<![CDATA[

উভয় দেশের মধ্যে বাণিজ্য বাড়াতে ১৬টি নতুন সীমান্ত হাট চালুর কথা বিবেচনা করছে ভারত ও বাংলাদেশ। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ কূটনীতিক স্মিতা পন্তের বরাতে এ তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম মিন্ট।

সম্প্রতি থিঙ্ক-ট্যাঙ্ক এশিয়ান কনফ্লুয়েন্সের ভারতের উত্তর-পূর্ব এবং বাংলাদেশের মধ্যকার কানেকটিভিটি নিয়ে আয়োজিত একটি সম্মেলনে এ কথা জানান পন্ত।

 

তিনি জানান, বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে ‍৮টি সীমান্ত হাট চালু রয়েছে। এগুলো ত্রিপুরা এবং মেঘালয়ের মতো উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্যগুলোতে অবস্থিত।

 

নতুন সীমান্ত হাটগুলো স্থাপনের বিষয়টি নিয়ে বর্তমানে নয়াদিল্লি ও ঢাকার মধ্যে আলোচনা চলছে। এসব সীমান্ত হাট মিজোরাম ও পশ্চিমবঙ্গে স্থাপন করা হবে। নতুন সীমান্ত হাট সীমান্তের উভয় পাশে অবৈধ বাণিজ্য কমানোর পাশাপাশি সীমান্ত এলাকায় বসবাসকারী মানুষের জন্য বাজারে প্রবেশ এবং অর্থনৈতিক সুযোগ আরও উন্নত করতে ভূমিকা রাখবে।

 

আরও পড়ুন: সীমান্ত হাটের জায়গা পরিদর্শনে ভারতীয় সহকারী হাইকমিশনার

 

এই উদ্যোগ এমন সময়ে নেয়া হলো, যখন উভয় দেশ নিজেদের মধ্যকার বাণিজ্যপ্রবাহ উন্নত করার জন্য বেশ কয়েকটি পদক্ষেপের পরিকল্পনা করেছে।

 

উভয় দেশ জাপানের অর্থায়নে বেশ কিছু উদ্যোগের মাধ্যমে যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত করার জন্য অবকাঠামো নির্মাণের কাজ করেছে। ২০২৭ সালের মধ্যে মাতারবাড়ি বন্দর নির্মাণকাজ শেষ হলে ভারত থেকে বাংলাদেশে এবং পরবর্তী সময়ে এশিয়ার বাজারে পণ্যের সহজ প্রবাহের সুযোগ সৃষ্টি হবে বলে আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

 

এর পাশাপাশি এই তিন দেশ ‘বে অব বেঙ্গল নর্থইস্ট ইন্ডাস্ট্রিয়াল ভ্যালু চেইন কনসেপ্ট’ নিয়েও একত্রে কাজ করছে। এ ছাড়া বিস্তৃত পরিসরের একটি অর্থনৈতিক চুক্তির জন্য নয়াদিল্লি ও ঢাকা আলোচনা করছে।

]]>

সূত্র: সময় টিভি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *